ঢাকাবৃহস্পতিবার , ১৬ জুন ২০২২

‘তোমার ছেলেমেয়েদের রাস্তায় নাচাব’, কাকে বলেছিলেন সালমান?

রবিউল আওয়াল (স্টাফ রিপোর্টার)
জুন ১৬, ২০২২ ৩:৫৬ অপরাহ্ণ
Link Copied!

১৯৭০ দশকে বলিউড সিনেমা জগতে আমূল পরিবর্তন ঘটিয়েছিলেন প্রযোজক সেলিম খান। একের পর এক ব্লকবাস্টার ছবি উপহার দিয়েছেন দর্শকদের। বি-টাউনের বহু তারকার সঙ্গেই তার অন্তরঙ্গ সম্পর্ক ছিল।

তাদের মধ্যে অন্যতম ছিলেন অভিনেতা শক্তি কাপুর। প্রায়ই খান-কাপুর জুটি সেলিমের বাড়ির বারান্দায় আসরে বসতেন। কিছুক্ষণ পর সন্ধ্যার সেই আসরগুলোতে ডাক পড়ত তিন খান-পুত্রের।

সালমান, আরবাজ, সোহেলকে তাদের সামনেই নাচ করতে বলতেন শক্তি। সেলিমও তাকে বাধা দিতেন না কখনও।

পরে শক্তি কাপুরের সঙ্গেই বহু সিনেমায় অভিনয় করতে দেখা গেছে সালমানকে। ‘আন্দাজ আপনা আপনা’, ‘হ্যালো ব্রাদার’, ‘হাম সাথ সাথ হ্যায়’ ছবিতে শক্তি কাপুর এবং সালমানের রসায়ন বেশ ভালই ছিল।

কিন্তু পর্দার আড়ালে দুই অভিনেতার মধ্যে কতটা তিক্ততা দানা বেঁধেছিল, তা বোঝা যায় ‘বিগ বস’ রিয়্যালিটি শোয়ের মাধ্যমে। অনুষ্ঠানের সঞ্চালনায় ছিলেন স্বয়ং সালমান খান।

প্রতিযোগীদের মধ্যে ছিলেন শক্তি কাপুরও। ভাইজান সালমান সমস্ত প্রতিযোগীকে ‘বিগ বস’-এর বাড়িতে আমন্ত্রণ জানালেও শক্তিকে এড়িয়ে যান।

শো চলাকালীন সালমান এ কথাও বলেছিলেন যে, বিগ বসের বাড়ির ভিতর এমন কয়েকজন থাকতে শুরু করেছেন যাদের সালমান নিজের বাড়িতেও নিমন্ত্রণ জানাবেন না। এই কথাটি ভাইজান যে পরোক্ষভাবে শক্তি কাপুরের উদ্দেশেই বলেছেন তা সকলেই বুঝতে পেরেছিলেন।

‘বিগ বস’ অনুষ্ঠানটি শেষ হওয়ার পর শক্তি এক সাক্ষাৎকারে জানান, “সলমন আমাকে ওঁর বাড়িতে ডাকলেও আমি যাব না। আমার বাড়ির স্নানঘরও সালমানের বাড়ির চেয়ে বড়।”

তিনি ভাইজানের বিরুদ্ধে প্রচুর টুইট করেছেন। সালমান মেয়েদের গায়ে হাত তোলেন, এমনকি ‘বিগ বস’-এ কোন প্রতিযোগী জিতবেন তা-ও নির্ধারণ করেন তিনি— এমন সব অভিযোগ ছিল সেই টুইটগুলোতে।

অভিনেত্রী মেহক চাহালের প্রতি সালমানের দুর্বলতা লক্ষ করেছিলেন শক্তি। ভাইজানের দাক্ষিণ্যেই মেহক পঞ্চম সিজনে দ্বিতীয় স্থান দখল করেছেন বলে দাবি শক্তির।

শক্তি কাপুরের জন্যই ছোটবেলা থেকে যথেষ্ট হেনস্থার শিকার হয়েছেন সালমান ও তার দুই ভাই। এই কারণেই বোধ হয়, ভাইজান শক্তিকে সরাসরি হুমকি দিয়েছিলেন। তার ছেলেমেয়েদেরও রাস্তায় নাচাবেন সালমান, বলেছিলেন শক্তিকে।

ভাইজান কথাটি মজার ছলে বললেও এর প্রকাশ ঘটে অন্যভাবে। শক্তি কাপুরের ছেলে সিদ্ধান্তকে প্রথমবার বড় পর্দায় নিয়ে আসবেন বলে প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন সালমান।

কিন্তু ভাইজান এই প্রসঙ্গে পরবর্তীতে কোনও উচ্চবাচ্যই করেননি। অনেকে মনে করেন, সালমান হয়তো এভাবেই প্রতিশোধ নিয়েছেন।

শক্তি কাপুরও কোনও দিন টুইটগুলো করার জন্য ক্ষমা চাননি। বরং, তার অ্যাকাউন্ট হ্যাক হয়নি বলেই দাবি করেছিলেন তিনি।

পরে অবশ্য ভাইজানের বিরুদ্ধে কোনও অভিযোগ করেননি তিনি। সালমানের সঙ্গে তার পরিবারের ভাল সম্পর্ক রয়েছে বলেই জানিয়েছেন শক্তি কাপুর।