ঢাকাবুধবার, ২৭শে অক্টোবর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ভোর ৫:৫৮
আজকের সর্বশেষ সবখবর

এসির বিকল্প হবে দেয়ালের রং  

জান্নাতুল ফেরদৌস(নিজস্ব প্রতিবেদক)
সেপ্টেম্বর ২৪, ২০২১ ১২:৪৯ পূর্বাহ্ণ
পঠিত: 31 বার
Link Copied!

যুক্তরাষ্ট্রের পারডু বিশ্ববিদ্যালয়ের এক দল গবেষক এমন এক রং আবিষ্কার করেছে, যা দেয়ালে ব্যবহার করলে  ঠাণ্ডা হবে ঘর।এটি এয়ারকণ্ডিশনের বিকল্প হিসাবে কাজ করবে। শুধু তাই নয়, এটি বৈশ্বিক তাপমাত্রা কমাতেও সাহায্য করবে। এরইমধ্যে গিনেজ বুকে নাম লেখিয়েছে এই “সাদা রং”।
পারডু বিশ্ববিদ্যালয়ের মেকানিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের অধ্যাপক জিউলিয়ান রুয়ান তার কয়েকজন ছাত্র মিলে প্রায় সাত বছর গবেষণা করছেন। অবশেষে সফলতার মুখ দেখেন তারা। তাদের দাবি এই সাদা রং পৃথিবীর অন্য সব সাদা রঙের চেয়ে আলাদা।

ADVERTISEMENT

রুয়ান বলেন, শুরু থেকেই তাদের ইচ্ছা ছিল এমন একটি রং তৈরির, যা একই সঙ্গে বিদ্যুৎ সাশ্রয়ী এবং জলবায়ুর পরিবর্তন প্রতিরোধে ইতিবাচক ভূমিকা রাখতে সক্ষম। শেষ পর্যন্ত তাদের উদ্দেশ্য সফল হয়েছে।
বিজ্ঞান বলে, সাদা রং সবচেয়ে কম তাপমাত্রা শোষণ করে। অর্থাৎ সূর্যের তাপ সবচেয়ে বেশি বিকিরিত হয় সাদা রং এর ওপর পড়লে। যে কারণে বাড়ির বাইরের দেয়ালে সাদা রং করলে ঘর তুলনামূলক ঠাণ্ডা থাকে। বিশ্বের গ্রীষ্ম প্রধান দেশ গুলোতে তাই, বেশিরভাগ ভবনের বাইরের দেয়ালে সাদা পেইন্ট করা হয়।

দেয়ালের সাদা রং ঘরকে ঠাণ্ডা রাখে

ADVERTISEMENT

রুয়ানের দাবি, তার আবিস্কৃত সাদা রংটিও একইভাবে কাজ করবে,  তবে এর তাপমাত্রা বিকিরণ করার ক্ষমতা আরও বেশি, অর্থাৎ এটি আরও কম তাপমাত্রা শোষণ করবে।
বর্তমানে যেসব সাদা পেইন্ট বাজারে কিনতে পাওয়া যায় সেগুলো সর্বোচ্চ ৯০ শতাংশ পর্যন্ত সূর্যের তাপ বিকিরণ করতে পারে। তবে নতুন আবিষ্কৃত সাদা রংটি ৯৮ শতাংশের বেশি তাপ বিকিরণ করবে বলে দাবি করেছে রুয়ানের গবেষণা দল।
এরইমধ্যে তুলনামূলক উষ্ণ একটি এলাকার ভবনের বাইরের দেয়ালে এই রং ব্যবহার করে দেখা গেছে, এতে ভবনের ভেতরের তাপমাত্রা, আগের চেয়ে প্রায় ১৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস কমে গেছে। এজন্য এটি এয়ারকণ্ডিশনের বিকল্প হিসাবে কাজ করবে বলে দাবি করেন রুয়ান।
এরইমধ্যে পৃথিবীর সবচেয়ে সাদা রং হিসাবে গিনেজ বুক অব ওয়ার্ল্ড রেকর্ডসে জায়গা করে নিয়েছে রুয়ানের এই আবিষ্কার।  এর পেটেন্ট পেতে আবেদন পত্রও জমা দেয়া হয়েছে। একটি কোম্পানির সঙ্গে কাজ করে রংটি বাজারে আনতে পারলে, বাণিজ্যিক ব্যবহার শুরু হবে বলে প্রত্যাশা গবেষক দলটির।

সূত্র : ডিএনএ ইন্ডিয়া

ADVERTISEMENT
ADVERTISEMENT

x